বখাটের খুরের টানে কলেজ ছাত্রীর গালে গুরুতর জখম

ময়মনসিংহের গফরগাঁওয়ে প্রেমে ব্যর্থ হয়ে কলেজ শিক্ষার্থীর গালে খুর দিয়ে টান দিয়ে গুরুতর আহত করার অভিযোগ উঠেছে উথুরী গ্রামের হুমায়ুন কবিরের বখাটে ছেলে জাহিদের(১৯) বিরুদ্ধে।

শনিবার সকালে সালটিয়া ইউনিয়নের কাওয়ামারা বন্দের নির্জন এলাকায় ঘটনাটি ঘটে।
জানা যায়, উথুরী গ্রামের রিক্সাচালক মোঃ রোকন উদ্দিনের মেয়ে স্থানীয় মহিলা ডিগ্রী কলেজের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী জান্নাত আরা(১৭) সকালে গফরগাঁওয়ের উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে রওনা করে। সালটিয়া ইউনিয়নের ধামাইল গ্রামের কাওয়ামারা বন্দের নির্জন স্থানে আসার পর বখাটে জাহিদ পথ আটকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়। জান্নাত অস্বীকৃতি জানালে বখাটে জাহিদ খুর দিয়ে মুখে এলোপাথারি আঘাত করতে থাকে।
এতে করে কলেজ শিক্ষার্থীর গালে মারাত্মক জখম হয়।

পরে স্থানীয় লোকজন এসে তাকে উদ্ধরে উপজেলা স্বাস্থ্য
কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। কর্তব্যরত চিকিৎসক তাঁকে ময়মনসিংহ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে পাঠিয়ে দেয়।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্তব্যরত চিকিৎসক ডা.নাইমা আফরিন বলেন, শিক্ষার্থীর বাম গালে ধারালো অস্ত্রের তিনটি আঘাতের চিহ্ন পাওয়া গেছে।
জান্নাতের পিতা রোকন উদ্দিন বলেন, প্রায়ই আমার মেয়ের চলার পথে উত্যক্ত করতো বখাটে জাহিদ। সে আমার মেয়ের জীবন বিষিয়ে তুলেছে। একাধিকবার ছেলের পরিবারকে বিষয়টি অবহিত করেছি।

গফরগাঁও থানার ওসি ফারুক আহম্মেদ বলেন,এখনো কোন অভিযোগ আসেনি। অভিযোগের ভিত্তিতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

খবর বিশ্ব/আনোয়ারুল কবির মামুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *